1. mustafejrumon2020@gmail.com : এম আর : এম আর
  2. fakhrulislam1929@gmail.com : fakhrul islam : fakhrul islam
  3. janapadnews24@gmail.com : janapadnews :
  4. ujjalhafej7@gmail.com : ইউ এইচ : ইউ এইচ
চাদাঁবাজদের দখলে উত্তরা ও তুরাগের ব্যস্ততম ফুটপাত(পর্ব-০১) - জনপদ নিউজ | Janapad News
শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ০৩:১৬ পূর্বাহ্ন

চাদাঁবাজদের দখলে উত্তরা ও তুরাগের ব্যস্ততম ফুটপাত(পর্ব-০১)

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
  • আপডেট : বুধবার, ৩ মার্চ, ২০২১
  • ৩৬ Time View

থেমে নেই চাঁদাবাজি! রাজধানী উত্তরা ও তুরাগের মাঝামাঝি ব্যস্ততম খালপাড় এলাকা জুড়ে বসানো শতাধিক ভাসমান দোকান। এগুলো দখলমুক্ত করার নেই কোনো উদ্যোগ । রাস্তা, ফুটপাত, সরকারি জায়গা, মসজিদের সামনের অংশ সবই একে একে দখল হয়ে যাচ্ছে। অভিযোগ উঠেছে এগুলো দখল করে হকারদের ব্যবসা করার সুযোগ করে দিচ্ছে স্থানিয় থানা পুলিশ, ছাত্রলীগ ও স্থানীয় কাউন্সিলর। বিনিময়ে চিহ্নিত এই সিন্ডিকেটকে প্রতিদিন মোটা অঙ্কের চাঁদা তুলে দিচ্ছে তাদের নিয়োজিত লাইনম্যানরা। এ চাঁদাবাজির টাকা ভাগাভাগি নিয়ে প্রতিনিয়ত ঘটছে সংঘর্ষের ঘটনা। থানায় মামলা, পাল্টা মামলাও হচ্ছে। অথচ প্রশাসন নির্বিকার। এদিকে, রাস্তা দখলের কারণে তুরাগের খালপাড়ে রাতদিন যানজট লেগেই আছে। তাছাড়া অবৈধ অটোরিকশা স্ট্যান্ড তৈরি করায় বিশৃঙ্খলা লেগে প্রতিনিয়ত ভয়াবহ যানজটের সৃষ্টি করছে। যার প্রভাব গিয়ে পড়ছে পুরো আশপাশের এলাকায়। এতে করে এলাকাবাসিকে প্রতিনিয়ত সীমাহীন ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। সরেজমিনে এলাকাটি ঘুরে দেখা গেছে, প্রতিদিনই নতুন নতুন ফুটপাত ও রাস্তা দখল হয়ে যাচ্ছে। পাশেই দেখা গেলো উত্তরা পশ্চিম ও তুরাগ থানার দুটি পুলিশ বক্স। কর্তব্যরত ট্রাফিক পুলিশকে যানজট নিরসনে মাঝে মধ্যে তৎপর দেখালেও রাস্তা বা ফুটপাত দখলমুক্ত করতে কোনো উদ্যেগ নিতে দেখা যায়নি। হকাররা জানান, পুলিশকে ম্যানেজ করে লাইনম্যান নামধারী চাঁদাবাজরা তাদেরকে ফুটপাত ও রাস্তা দখলের সুযোগ করে দিয়েছে। যার কথোপোকথনের একটি ভিডিও প্রতিবেদকের কাছে রয়েছে। সেই ভিডিওতে অকপটে বলতে শোনা গেছে কিভাবে এই চাদাঁর টাকা ভাগ বাটোয়ারা করা হয়।

আর এসব লাইনম্যানদের পেছন থেকে মদদ দিচ্ছে চাঁদাবাজ সিন্ডিকেট। যাদের একাধিক গ্রুপ রয়েছে।  লাইনম্যানদের আবার এটি সিন্ডিকেট কাজ করে। এই সিন্ডিকেটের মধ্যে রয়েছে মোঃ নবী,আমিন আতিক,সান,সানু, রাসেল, খালপাড়ের হাফিজুর, কবির, হযরত, বিল্লাল জসিমউদ্দিন টু পাকার মাথা আজমপুর টু রবীন্দ্র স্বরনীর আনোয়ার, মেহেদী,মানিক,ফরহাদ,প্রিন্স মামুন, চায়না মার্কেটের সামনে মাসুদ, রাজলক্ষ্মী ফারুক, সায়মন খালপাড়ে মিরাজ,মোস্তফা রাসেল,হাফিজসহ অন্যান্যরা।

তবে এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছে জড়িতরা বলছেন, এসব অভিযোগ সত্য নয়।

এ প্রসঙ্গে বিস্তারিত থাকছে পরর্ব্তী পর্বে।

আপনার সোশ্যাল মিডিয়াতে পোস্টটি ছড়িয়ে দিন

আরো খবর . . .
All rights reserved 2021 © JanapadNews.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazarjanapadn121