1. mustafejrumon2020@gmail.com : এম আর : এম আর
  2. fakhrulislam1929@gmail.com : fakhrul islam : fakhrul islam
  3. janapadnews24@gmail.com : janapadnews :
  4. ujjalhafej7@gmail.com : ইউ এইচ : ইউ এইচ
আশকোনা হাজি ক্যাম্প এলাকার ফুটপাত ও রাস্তা দখল করে চলছে চাঁদাবাজি  - জনপদ নিউজ | Janapad News
শনিবার, ২৩ জানুয়ারী ২০২১, ১১:৩৭ অপরাহ্ন

আশকোনা হাজি ক্যাম্প এলাকার ফুটপাত ও রাস্তা দখল করে চলছে চাঁদাবাজি 

মোস্তাফিজ রুমন
  • আপডেট : শনিবার, ৭ নভেম্বর, ২০২০
  • ৩২ Time View

রাজধানী বিমানবন্দর-দক্ষিণখান সড়কের আশকোনা রেল ক্রসিং থেকে শুরু করে হাজি ক্যাম্পের সামনে পর্যন্ত এলাকার ফুটপাত নিয়ন্ত্রণ করছেন আ’লীগ নেতা পরিচয় দানকারী তিন চাঁদাবাজ। এরা হলেন, বাবলু,জামাল ও খায়রুল। অভিযোগ রয়েছে বিমান বন্দর থানা পুলিশ,বিট পুলিশ, জিআরপি,সি আই, আই সি,আর এনবি ও স্টেশন মাস্টারকে নিয়মিত মাসোহারা দিয়েই চলছে ফুটপাত দখল করে চাঁদাবাজি। চলছে অবৈধ অটোরিকশা বাণিজ্য।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, বিমানবন্দর থেকে দক্ষিণখান ইউনিয়নগামী সড়কটির আশকোনা রেলক্রসিং থেকে শুরু করে হাজি ক্যাম্পের বিপরীত অংশের প্রায় সবটুকু ফুটপাত ও রাস্তা দখলে চলে গেছে প্রভাবশালীদের। জনগণের চলাচলের রাস্তায় বসানো হয়েছে শতাধিক শাকসবজি, ফলমূল, ও মাছের দোকান। পাঁচ ফুট চওড়া ফুটপাত এত সরু হয়ে গেছে যে, সেখানে হাঁটাও মুশকিল। যাঁরা ফুটপাতে জায়গা পাচ্ছেন না, তাঁরা মালামাল নিয়ে বসে পড়েছেন রাস্তার ওপরই। এমনকি রাস্তার বিভাজকের ওপরেও রাখা আছে ব্যবসার নানা সরঞ্জাম। ফলে ঝুঁকি নিয়ে পথচারীদের চলতে হচ্ছে মূল সড়কে নেমে মাঝপথ বরাবর।

আশকোনার বাসিন্দা এম এ আজাদ বলেন, ‘এই পথেই আমাদের নিয়মিত যাতায়াত করতে হয়। কিন্তু বর্তমানে ফুটপাতের পুরো অংশেই বাজার বসে গেছে। হেঁটে চলাচলের আর কোনো উপায় নেই। পথচারী বাবু বলেন, ফুটপাতের যেটুকু অংশ ফাঁকা আছে, সেটা তো লোকজনের চলাচলের উপযোগী নয়।

আশকোনার স্থায়ী বাসিন্দা জাহাঙ্গীর আলম বলেন, এখানে রেলক্রসিং আছে। রিকশা ও অন্য যান চলাচল ব্যাহত হয় ট্রেনের কারণে। তাই বাসা থেকে বেরিয়ে গাড়িতে না উঠে এই পথটুকু তিনি হেঁটেই চলাচল করেন। কিন্তু ফুটপাত ও সড়কে অস্থায়ী দোকানের কারণে স্বস্তিতে হাঁটার সুযোগও নেই।

স্থানীয়রা আরও অভিযোগ করেন, দুপুরের পর থেকেই বসতে শুরু করেন দোকানিরা। বিকেল গড়াতেই এলাকার চিত্র পুরোপুরি পাল্টে যায়। নানান হাঁকডাকে মুখরিত হয়ে ওঠে এলাকা। এই বাজারে পোশাকের পাশাপাশি নিত্যপ্রয়োজনীয় সব পণ্যই মেলে। তরিতরকারিসহ আছে মাছের দোকানও। সন্ধ্যার পর এই রাস্তা দিয়ে হাঁটাচলার কোনো উপায়ই থাকে না পথচারীদের।

রেলস্টেশন-সংলগ্ন ফুটপাতে কয়েক বছর ধরে ফল বিক্রি করেন নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ব্যবসায়ী জানালেন, এই এলাকার ফুটপাত নিয়ন্ত্রণ করেন বাবলু,জামাল ও খায়রুল। তাদের অনুমোদিত লাইনম্যানকে চাঁদা দিয়ে চলে ফুটপাতের এসব দোকান। লাইনম্যানদের তোলা টাকাই পরবর্তীতে ওই তিন নেতা ভাগবাটোয়ারা করে দেয় বিভিন্ন জায়গায়।

ফুটপাত ও সড়কে এই ব্যবসা চলছে দীর্ঘদিন ধরে। তবে সম্প্রতি তা তীব্র হয়ে পড়ায় ভোগান্তিতে পড়েছেন এই এলাকার বাসিন্দারা। স্থানীয় বাসিন্দা কামাল অভিযোগ করেন, হজের সময় ফুটপাত উচ্ছেদে প্রশাসনের তৎপরতা থাকলেও অন্য সময় চলে প্রশাসনের অনিহা। সারা বছর পুলিশের সামনে দিয়েই চলে এ দখলদারিত্ব।

সমস্যা ও ভোগান্তি সমাধানে প্রশাসনের উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন এলাকাবাসী।

 

আপনার সোশ্যাল মিডিয়াতে পোস্টটি ছড়িয়ে দিন

আরো খবর . . .
All rights reserved 2021 © janapadnews  website developed by Ariyan Sakib 
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazarjanapadn121